ভাটি অঞ্চলের মানুষের ভাগ্যের পরিবর্তনে শেখ হাসিনার নৌকায় ভোট দিতে হবে

Spread the love

দক্ষিণ সুনামগঞ্জ প্রতিনিধি

সরকারের অর্থ ও পরিকল্পনা প্রতিমন্ত্রী এমএ মান্নান এমপি বলেছেন, স্বাধীনতার পূর্বে আমরা পরাধীন ছিলাম বলেই বাঙ্গালী জাতির কোন ইজ্জত-সম্মান ছিল না। আজ আমরা স্বাধীনতা পেয়েছি,ইজ্জত-সম্মান পেয়েছি। বিশে^র বুকে বাঙ্গালী জাতি হিসাবে মাঁথা উচু করে দাড়িয়ে আছি। বর্তমান আ.লীগ সরকার মুক্তিযুদ্ধের পক্ষের সরকার। এদেশে আ.লীগ যত বার ক্ষমতায় এসেছে, তত বারই উন্নয়নের অগ্রযাত্রায় আপোষহীন ভাবে অবদান রেখেছে। আ.লীগ সরকার মানেই উন্নয়ন। তাই আগামী নির্বাচনে ভাটি অঞ্চলের মানুষের ভাগ্যের পরিবর্তনে শেখ হাসিনার নৌকায় ভোট দিতে হবে।
তিনি বলেন, বিগত বোরো মৌসুমে আগাম বন্যায় এ অঞ্চলের মানুষের লালিত স্বপ্ন ফসল তলিয়ে গিয়েছিল। মানুষ অসহায় নিঃস্ব হয়ে গিয়েছিল, অনেকেই মনে মনে ভাবছিল এবার বুঝি না খেয়ে মরতে হবে। কিন্তু আ.লীগ সরকার কাউকে না খেয়ে মরতে দেয়নি। সবাইকে খাওয়ার ব্যবস্থা করে দিয়েছে। আ.লীগ দেশ ও দেশের মানুষের জন্য রাজনীতি করে, নিজেদের জন্য নয়। আর সে জন্য দেশে আজ এতো উন্নয়ন হচ্ছে।
তিনি আরো বলেন, আমি ভাটি অঞ্চলের মানুষ। আমি আপনাদের সেবক। ভাটি অঞ্চলের সকল মানুষই আপনজন। ভাটি অঞ্চলে আজ থেকে ১৫-২০ বছর পূর্বে বিদ্যুতের আলো কল্পনা করা অসম্ভব ছিল। কিন্তু জননেন্ত্রী শেখ হাসিনার সরকার ক্ষমতায় এসে সেই রূপকথার গল্পকে হারি মানিয়েছেন। প্রতিটি গ্রামকে বিদ্যুতের আলোয় শহরে পরিনত করেছেন। সরকার শহরের সকল সুযোগ সুবিধা গ্রামের লোকজনদের দেওয়ার জন্য শিক্ষা প্রতিষ্ঠান স্কুল-কলেজ-মাদ্রাসা স্থাপন থেকে শুরু করে বিশ^বিদ্যালয় পর্যন্ত স্থাপন করেছেন। শুধুমাত্র আওয়ামী লীগ সরকারের মাধ্যমেই যা সম্ভব হয়েছে । তাই আগামী জাতীয় সংসদ নির্বাচনে নৌকা প্রতিকে ভোট দিয়ে শেখ হাসানার সরকারে ক্ষমতায় আসিন করতে হবে।
১৪ সেপ্টেম্বর শুক্রবার দক্ষিণ সুনামগঞ্জ উপজেলার শিমুলবাক ইউনিয়নের মুরাদপুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় মাঠে, ইউনিয়নের মুরাদপুর, লালুখালী, থলেরবন্দ, আক্তাপাড়া গ্রামের পল¬ী বিদ্যুতের নতুন সংযোগ উদ্বোধন উপলক্ষে জনসভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে উপরোক্ত কথা বলেন তিনি।
সভায় শিমুলবাক ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মো. মিজানুর রহমান জিতুর সভাপতিত্বে, শিমুলবাক ইউনিয়ন যুবলীগের আহবায়ক গোলাম নুরের পরিচালনায় বিশেষ অতিথি হিসাবে বক্তব্য রাখেন সুনামগঞ্জ জেলা পল্লী বিদ্যুৎ সমিতির ব্যবস্থাপক অখিল কুমার স্বাহা, দক্ষিণ সুনামগঞ্জ উপজেলা আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক মো. আতাউর রহমান, সুনামগঞ্জ জেলা পরিষদ সদস্য মোছা. ফারহানা ইয়াসমিন সীমা।
এসময় অন্যান্যদের মাঝে বক্তব্য রাখেন জয়কলস ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান মো. মাসুদ মিয়া,উপজেলা আওয়ামী লীগ সহ সভাপতি মাওলানা আব্দুল কাইয়ূম,দক্ষিণ সুনামগঞ্জ পল্লী বিদ্যুতের এরিয়া পরিচালক মো. ফরিদুর রহমান,অর্থ ও পরিকল্পনা প্রতিমন্ত্রী আলহাজ¦ এম এ মান্নানের ছেলে সাহাদাত মান্নান অভি, দক্ষিণ সুনামগঞ্জ আওয়ামী যুবলীগ সভাপতি অ্যাড. বোরহান উদ্দিন দোলন, উপজেলা কৃষকলীগের সাবেক আহবায়ক মো. ফয়জুর রহমান, সুনামগঞ্জ জেলা ছাত্রলীগের সাবেক নেতা কামরুল ইসলাম সিপন,ভাটিপাড়া ইউনিয়ন আওয়ামী লীগ নেতা মাহমদুল হাছান,আওয়ামী লীগ নেতা উসমান গণি, আপ্তা মিয়া, আব্দুল্লাহ আল মামুন প্রমুখ। এসময় উপস্থিত ছিলেন পূর্ব পাগলা ইউপি চেয়ারম্যান মো.আক্তার হোসেসন, পাথারিয়া ইউপি চেয়ারম্যান মো. আমিনুর রশিদ,দরগাপাশা ইউপি চেয়ারম্যান মো. মনির উদ্দিন,উপজেলা আওয়ামী লীগ সহ সভাপতি হাজী তহুর আলী,সাংগঠনিক সম্পাদক আব্দুল বাছিত সুজন,আওয়ামী লীগ নেতা আসাদুর রহমান আসাদ, জিএম সাজ্জাদুর রহমান, তেরাব আলী, উপজেলা যুবলীগ সহ সভাপতি জুবেল আহমদ, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক অ্যাড. সফিকুল ইসলাম, ত্রান বিষয়ক সম্পাদক আহমদ প্রমুখ।

Print Friendly, PDF & Email

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

error: Content is protected !!