জগন্নাথপুরে প্রবাসী নারী কর্তৃক রাস্তা বন্ধ করা নিয়ে গ্রামবাসীর মধ্যে উত্তেজনা

Spread the love

মো.শাহজাহান মিয়া ::

 

সুনামগঞ্জের জগন্নাথপুর পৌর এলাকার কেশবপুর (বরাখা) গ্রামে এক প্রবাসী নারী কর্তৃক রাস্তা বন্ধ করার চেষ্ঠা নিয়ে গ্রামবাসীর মধ্যে ক্ষোভ ও উত্তেজনা বিরাজ করছে। যে কোন সময় বড় ধরণের সংঘর্ষের আশঙ্কা করছেন এলাকাবাসী।
জানাযায়, কেশবপুর (বরাখা) গ্রামের প্রায় সাড়ে শতাধিক মানুষের একমাত্র চলাচলের রাস্তা হচ্ছে গ্রামবাসীর নিজস্ব মালিকানা জায়গার উপর দিয়ে। রাস্তাটি সংযোগ হয়েছে সরকারি রাস্তায় গিয়ে। এ রাস্তা দিয়ে বিগত প্রায় কয়েক শত বছর ধরে গ্রামবাসী চলাচল করছেন এবং দুই বার রাস্তায় মাটি ভরাট করে দিয়েছে জগন্নাথপুর পৌরসভা কর্তৃপক্ষ। তবে বেশ কিছু ধরে রাস্তার দক্ষিণ অংশের জায়গার মালিকানা দাবি করে গ্রামের যুক্তরাজ্য প্রবাসী নারী জরিফুল বেগমের লোকজন পাকা দেয়াল দিয়ে রাস্তা বন্ধ করার চেষ্ঠায় মরিয়া হয়ে উঠেছে। এতে গ্রামবাসী রাস্তাটি বন্ধ না করার জন্য প্রতিবাদী হয়ে উঠেন। এ নিয়ে এলাকায় উত্তেজনা বিরাজ করছে।
অবশেষে ১৮ ফেব্রুয়ারি সোমবার প্রবাসী নারীর লোকজন দেয়াল দিয়ে রাস্তা বন্ধ করতে গেলে গ্রামবাসী বাধা দেন। এ নিয়ে বড় ধরণের সংঘর্ষের আশঙ্কা ছড়িয়ে পড়ে গ্রামে। এক পর্যায়ে শালিসি ব্যক্তিদের হস্তক্ষেপে পরিস্থিতি শান্ত হয়। এ নিয়ে গ্রামে শালিস বৈঠক অনুষ্ঠিত হয়েছে। এতে জগন্নাথপুর পৌরসভার প্যানেল মেয়র শফিকুল হক, স্থানীয় পৌর কাউন্সিলর তাজিবুর রহমান, শালিসি ব্যক্তি কাদির মাস্টার, আছকির আলী, আজাদ খা, রশিদ উল্লাহ, সুন্দর আলী, নুর ইসলাম, আবদুল হক সহ গ্রামের শতাধিক লোকজন উপস্থিত ছিলেন। বৈঠকে বিষয়টি আপোষে নিস্পত্তি করার সিদ্ধান্ত হয়।

Print Friendly, PDF & Email

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

error: Content is protected !!