জগন্নাথপুরে তরুণীর আত্মহত্যা নিয়ে কলেজ ছাত্রকে ফাসানোর চেষ্টা

Spread the love

মো.শাহজাহান মিয়া ::

সুনামগঞ্জের জগন্নাথপুরে মারিয়া বেগম (১৮) এক তরুণী আত্মহত্যা করেছেন। তিনি জগন্নাথপুর উপজেলার চিলাউড়া-হলদিপুর ইউনিয়নের খাগাউড়া-মহিষাকোনা গ্রামের হাফিজুর রহমানের কন্যা।
জানাগেছে, ৩ অক্টোবর বুধবার বিকেলে নিজ ঘরের বাথরুমের ভেন্ডিলেটরের সাথে গলায় ওড়না পেচিয়ে মারিয়া বেগম আত্মহত্যা করেন। খবর পেয়ে থানা পুলিশ লাশটি উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য সুনামগঞ্জ হাসপাতাল মর্গে প্রেরণ করেন।
এদিকে-এ ঘটনায় খাগাউড়া গ্রামের আনোয়ার হোসেনের ছেলে কলেজ ছাত্র ও প্রতিবাদী যুবক এনামুল হক এনামকে ফাসানোর চেষ্টা চলছে। যদিও হতভাগ্য মারিয়া পরিবারের কোন অভিযোগ নেই। তবুও গ্রামের একটি চক্র কলেজ ছাত্রকে ফাসাতে মরিয়া হয়ে উঠেছে। এ নিয়ে বিভিন্নভাবে অপ-প্রচার চালানো হচ্ছে বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে।
এ ব্যাপারে খাগাউড়া গ্রামের বাসিন্দা ও সিলেট এমসি কলেজের মাস্টার্স এর ছাত্র এনামুল হক এনাম অভিযোগ করে বলেন, সম্প্রতি-আমাদের গ্রামের ২ স্কুল ছাত্রী ধর্ষণের শিকার হয়। এসব ঘটনায় আমি প্রতিবাদ করেছিলাম। যে কারণে সেই ধর্ষণকারী চক্র মিথ্যাচারের মাধ্যমে এ আত্মহত্যার সাথে আমাকে ফাসাতে চাইছে।
এ ব্যাপারে জানতে চাইলে হতভাগ্য মারিয়া বেগমের পিতা হাফিজুর রহমান বলেন, আমার মেয়ে আত্মহত্যার ঘটনায় কারো কোন দোষ নেই। এক প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, আমি যদি জানতাম আমার মেয়ের সাথে কারো প্রেমের সম্পর্ক আছে, তাহলে সে মৃত্যুর আগেই সমাধান করতাম। এ ঘটনায় কারো বিরুদ্ধে আমার কোন অভিযোগ নেই।
জানতে চাইলে জগন্নাথপুর থানার এসআই কবির উদ্দিন বলেন, এ ঘটনায় গভীরভাবে তদন্ত চলছে। তদন্তক্রমে পরবর্তী ব্যবস্থা নেয়া হবে।

Print Friendly, PDF & Email

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

error: Content is protected !!